33 C
Kolkata
Monday, June 24, 2024

কেন্দ্রীয় রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থাগুলির মূলধনী ব্যয় নিয়ে দ্বিতীয় পর্যালোচনা বৈঠকে অর্থমন্ত্রী

Must Read

খবরইন্ডিয়াঅনলাইন, নয়াদিল্লিঃ কেন্দ্রীয় অর্থ তথা কর্পোরেট বিষয়ক মন্ত্রী শ্রীমতী নির্মলা সীতারমন আজ ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে চলতি অর্থবর্ষে মূলধনী ব্যয় সম্পর্কিত বিষয়ে অসামরিক বিমান পরিবহণ ও ইস্পাত মন্ত্রকের সচিবরা সহ রেল বোর্ডের চেয়ারম্যান এবং উক্ত মন্ত্রকগুলির ৭টি রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার সিএমডি-দের সঙ্গে পর্যালোচনা বৈঠকে মিলিত হন। কোভিড-১৯ মহামারীর প্রেক্ষিতে আর্থিক গতি ত্বরান্বিত করতে সংশ্লিষ্ট সকল পক্ষকে নিয়ে অর্থমন্ত্রীর এটি চলতি বৈঠকের দ্বিতীয় পর্যালোচনা বৈঠক।

ঐ ৭টি রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার ২০২০-২১ অর্থবর্ষে সম্মিলিত মূলধনী ব্যয়ের পরিমাণ ২৪ হাজার ৬৩৬টি টাকা স্থির হয়েছে। ২০১৯-২০ অর্থবর্ষে ঐ ৭টি রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার মূলধনী ব্যয় স্থির হয়েছিল ৩০ হাজার ৪২০ কোটি টাকা। ২০১৯-২০ অর্থবর্ষের প্রথম ত্রৈমাসিকে ৭টি রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার মোট মূলধনী ব্যয় ৩০ হাজার ৪২০ কোটি টাকার মধ্যে ২৫ হাজার ৯৭৪ কোটি টাকা অর্থাৎ ৮৫ শতাংশই খরচে সফল হয়েছে। ২০২০-২১ অর্থবর্ষের প্রথম ত্রৈমাসিকে ঐ ৭টি রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার মূলধনী ব্যয়ের পরিমান ৩ হাজার ৫৫৭ কোটি টাকা।

আরও পড়ুন -  Sabla Mela: বন্ধ হলো ময়নাগুড়ির সবলা মেলা

ভারতীয় অর্থনীতির বিকাশে রাষ্ট্রায়ত্ত ক্ষেত্রগুলির গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকার কথা উল্লেখ করে অর্থমন্ত্রী সংস্থাগুলিকে তাদের ধার্য লক্ষ্যমাত্রা পূরণে আরও বেশি কাজ করার উৎসাহ দেয়। তিনি বলেন, রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থাগুলির ভালো কাজকর্মের ফলে কোভিড-১৯ এর প্রভাব থেকে অর্থনীতির পুনরুদ্ধার সম্ভব হবে।

আরও পড়ুন -  স্টাইপেন্ড সহ প্রশিক্ষণের সুযোগ ভারতীয় রেলে, এইভাবে করুন আবেদন

অর্থমন্ত্রী সংশ্লিষ্ট মন্ত্রকের সচিবদের এবং রেল বোর্ডের চেয়ারম্যানকে ২০২০-২১ অর্থবর্ষের দ্বিতীয় ত্রৈমাসিকের শেষ নাগাদ রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থাগুলিকে মূলধনী বাবদ বরাদ্দকৃত অর্থের মধ্যে অন্তত ৫০ শতাংশ মূলধনী ব্যয় সুনিশ্চিত করার জন্য তীক্ষ্ণ নজর রাখার নির্দেশ দেন। এ প্রসঙ্গে তিনি আরও বলেন, ৫০ শতাংশ মূলধনী ব্যয় সুনিশ্চিত করার জন্য অবিলম্বে উপযুক্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করতে। বিবাদমান বিষয়গুলির দ্রুত সমাধানে তিনি সংশ্লিষ্ট মন্ত্রক ও দপ্তরগুলিকে আর্থিক বিষয়ক দপ্তর/ডিপিই/ডিআইপিএএ দপ্তরের সঙ্গে যোগাযোগ করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের পরামর্শ দেন অর্থমন্ত্রী। শ্রীমতী সীতারমন বলেন, রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থাগুলির মূলধনী ব্যয়ের অগ্রগতির সম্পর্কে তিনি প্রতি মাসে এ ধরনের পর্যালোচনা বৈঠক করবেন।

আরও পড়ুন -  OTT: দীপিকার `গেহরাইয়াঁ` ওটিটিতে মুক্তি পাচ্ছে

বৈঠকে কোভিড-১৯ মহামারীর প্রেক্ষিতে রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থাগুলি যে সমস্ত সমস্যার সম্মুখীন হচ্ছে, তা নিয়ে আলোচনা হয়। এ প্রসঙ্গে অর্থমন্ত্রী বলেন, অপ্রত্যাশিত পরিস্থিতি মোকাবিলায় সমবেতভাবে অসাধারণ কিছু পদক্ষেপ গ্রহণের প্রয়োজন। ‘আমাদের কেবল ভালো কাজ করলেই চলবে না, সেই সঙ্গে প্রত্যাশিত লক্ষ্য পূরণে ভারতীয় অর্থনীতিকেও সাহায্য করতে হবে’ বলে শ্রীমতী সীতারমন অভিমত প্রকাশ করেন। সূত্র – পিআইবি।

Latest News

Jogyosree Prakalpa: যোগ্যশ্রী প্রকল্প নিয়ে ঘোষণা সরকারের, SC ও ST-র পর এবার জেনারেলরাও পাবেন সুবিধা

Jogyosree Prakalpa: যোগ্যশ্রী প্রকল্প নিয়ে ঘোষণা সরকারের, SC ও ST-র পর এবার জেনারেলরাও পাবেন সুবিধা।  নানান ধরণের প্রকল্প চালু করা...
- Advertisement -spot_img

More Articles Like This

- Advertisement -spot_img