করোনায় ভারতে মৃত্যু হার ধারাবাহিকভাবে কমছে এবং এই হার ২.২৮ শতাংশ

খবরইন্ডিয়াঅনলাইন, নয়াদিল্লিঃ সুস্থতার সংখ্যা ৯ লক্ষের বেশি

পরপর চারদিন দৈনিক ৩০ হাজারের বেশি রোগী সুস্থ হয়েছেন।
ব্যাপক হারে নমুনা পরীক্ষা এবং হাসপাতালে ভর্তি রোগীদের উপযুক্ত চিকিৎসা পরিষেবা প্রদানের মাধ্যমে আক্রান্তদের আগাম চিহ্নিতকরণ তথা আইসোলেশন কৌশল গ্রহণ করে কেন্দ্র ও রাজ্য সরকারগুলির নিরন্তর প্রচেষ্টার ফলে দেশে করোনায় মৃত্যু হার ধারাবাহিকভাবে কমছে। সংক্রমিত এলাকাগুলিতে বিশেষ কৌশল গ্রহণ, ব্যাপক হারে নমুনা পরীক্ষা এবং আদর্শ চিকিৎসা পদ্ধতি অনুসরণ করে মৃত্যু হার দৈনিক কমে আসছে। ভারতে মৃত্যু হার কমে বর্তমানে দাঁড়িয়েছে ২.২৮ শতাংশ। বিশ্বের অন্যান্য দেশের তুলনায় ভারতে মৃত্যু হার অনেক কম।

আরও পড়ুন -  Abroad: মালদার আম ও মধু বিদেশে পাঠাতে বিশেষ উদ্যোগ নিল মালদা কৃষিবিজ্ঞান কেন্দ্র

দেশে পরপর চারদিন দৈনিক ভিত্তিতে ৩০ হাজারের বেশি মানুষ সুস্থ হয়েছেন। গত ২৪ ঘন্টায় সুস্থ হয়েছেন ৩১,৯৯১ জন। এর ফলে, সুস্থতার সংখ্যা ৯ লক্ষ ছাড়িয়ে বর্তমানে ৯ লক্ষ ৭০ হাজার ৫৬৭ হয়েছে। সুস্থতার হার বেড়ে হয়েছে ৬৪ শতাংশ।

আরও পড়ুন -  China: ২৭ জন নিহত চীনে, বাস দুর্ঘটনায়

মৃত্যু হার ক্রমশ হ্রাস পাওয়ায় এবং অধিক সংখ্যায় সুস্থতার ফলে সুস্থতার সংখ্যা আক্রান্তের সংখ্যার (৪ লক্ষ ৮৫ হাজার ১১৪) তুলনায় আজ পর্যন্ত বেড়ে হয়েছে ৪ লক্ষ ৩২ হাজার ৪৫৩। হাসপাতাল ও হোম আইসোলেশনে থাকা নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্ত সমস্ত রোগীকে চিকিৎসা পরিষেবা দেওয়া হচ্ছে।

কোভিড-১৯-এর বিষয়ে প্রকৃত ও সর্বশেষ তথ্য সংক্রান্ত টেকনিক্যাল বিষয়, নীতি-নির্দেশিকা এবং পরামর্শের জন্য নিয়মিতভাবে https://www.mohfw.gov.in/ এবং @MoHFW_INDIA – এই ওয়েবসাইটে নজর রাখুন। টেকনিক্যাল বিষয়ে অনুসন্ধানের জন্য technicalquery.covid19@gov.in, ncov2019@gov.in এবং @CovidIndiaSeva – এখানে যোগাযোগ করুন।

আরও পড়ুন -  Terrible Fire: দেশবন্ধু চিত্তরঞ্জন মার্কেটে ভয়াবহ আগুন, ঘটনাস্থলে দমকলের দুটি ইঞ্জিন

কোভিড-১৯ সংক্রান্ত যে কোন বিষয়ে জানার জন্য স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রকের হেল্পলাইন নম্বর : +91-11-23978046 অথবা 1075 (টোল ফ্রি) নম্বরে যোগাযোগ করুন। কোভিড-১৯ সংক্রান্ত রাজ্য / কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলির হেল্পলাইন নম্বরের তালিকা নিচের লিঙ্কে দেওয়া রয়েছে – https://www.mohfw.gov.in/pdf/coronavirushelplinenumber.pdf।
সূত্র – পিআইবি।

Leave a Comment